সংবাদ শিরোনাম
Home / আন্তর্জাতিক / কম্বোডিয়ার জঙ্গলে এমএইচ ৩৭০!

কম্বোডিয়ার জঙ্গলে এমএইচ ৩৭০!

দিশারী অনলঅইন ডেস্কঃ
মালয়েশিয়ান এয়ারলাইন্সের নিখোঁজ হয়ে যাওয়া ফ্লাইট এমএইচ৩৭০ নিয়ে শুরু থেকেই উদ্বিগ্ন গোটা বিশ্ব। বিমানটির খোঁজে দেশটির সরকারসহ কয়েকটি সংস্থা ব্যাপক তদন্ত করেও রহস্যঘেরা এ ঘটনার কোনো কূল-কিনারা করতে পারেনি। তদন্তকারীরা এমএইচ৩৭০ এর নিখোঁজ হওয়ার ঘটনায় একেকবার একেক তথ্য দিয়ে থাকলেও কোনোটি থেকেই এর সন্ধানে বেশি দূর এগোনো যায়নি। তবে এবার তদন্তকারী কোনো দল নয়, বনে ঘোরাফেরা করে এমন দুই সহোদর এবং এক ভিডিও প্রযোজক এমএইচ৩৭০ ফ্লাইট ঘিরে নতুন গুঞ্জনের জন্ম দিয়েছেন।
তারা দাবি করছেন, এশিয়ার দেশ কম্বোডিয়ার একটি জঙ্গলে ওই বিমানটির ধ্বংসাবশেষ দেখা গেছে। সেখানে সন্ত্রাসীরা এটাকে লুকিয়ে রেখেছে। সংবাদ মাধ্যম বলছে, ইয়ান এবং তার ভাই জ্যাক জানিয়েছেন, জঙ্গলের একটি গভীর এলাকায় ভ্রমণের জন্য গেলে তাদের আটকে রেখে ৫৩ মিলিয়ন পাউন্ড মুক্তিপণ নেয় একটি অস্ত্রধারী দল। এরপর তাদের মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে ওই এলাকায় না যাওয়ার জন্য সতর্ক করে দেওয়া হয়।
ক্রোক লা ইয়াং জলপ্রপাতের মধ্যে কোনো একটি জায়গার ইঙ্গিত দিয়ে ব্রিটিশ ভিডিও প্রযোজক ইয়ান উইলসন দাবি করে বলেন, আমি মালয়েশীয় এয়ারলাইন্সের হারিয়ে যাওয়া সেই এমএইচ৩৭০ ফ্লাইটের ধ্বংসাবশেষ দেখেছি। হারিয়ে যাওয়া বিমানটিতে চীনা যাত্রী ছিলেন ১৫৩ জন এবং ৩৮ জন মালয়েশিয়ান। এছাড়াও ইরান,যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা, ইন্দোনেশিয়া, অস্ট্রেলিয়া, ভারত, ফ্রান্স, নিউজিল্যান্ড, ইউক্রেন, রাশিয়া, তাইওয়ান এবং নেদারল্যান্ডস-এর যাত্রী ছিলেন এই ফ্লাইটে। আর ১২ জন ক্রু যারা সবাই মালয়েশিয়ারই ছিলেন। এ বিষয়ে দেশটির সরকারের পক্ষ থেকে ঘোষণা করা হয়েছিল, সম্ভবত ভারত মহাসাগরের দক্ষিণাংশে বিমানটি আকাশ থেকে পড়ে যায় এবং এর যাত্রীরা কেউ বেঁচে নেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*